ভারত বনাম পাকিস্তান ম্যাচের যেই পাঁচটা লড়াই এর দিকে তাকিয়ে থাকবে গোটা ক্রিকেট বিশ্ব

রবিবার ভারত বনাম পাকিস্তানের হাইভোল্টজ ম্যাচে কোন পাঁচটা লডা়ইয়ের দিকে নজর থাকবে ক্রিকেট ভক্তদের। যেই লড়াই ম্যাচের ফ্যাক্টর হতে পারে। যদিও আইসিসি-র বিশ্বকাপে ভারত পাকিস্তানের বিরুদ্ধে এখনও পর্যন্ত ১২-০ এগিয়ে রয়েছে।

তবুও সীমিত ওভারের বড় ম্যাচে যে কোনও সময় যে কোনও দলই খেলা ঘুরিয়ে দিতে পারে। চলুন দেখা যাক ম্যাচের গেম চেঞ্জারের ভূমিকায় কাকে কাকে দেখা যেতে পারে। কার বিরুদ্ধে কার লড়াই জমে উঠবে বাইস গজে।

প্রথমেই যাদের কথা বলতে হবে তারা হলেন রোহিত শর্মা ও শাহিন আফ্রিদি। যদিও দারুণ ফর্মে রয়েছে ভারতের ওপেনার রোহতি শর্মা, তবু পাকিস্তানের বাঁ হাতি পেসার শাহিন আফ্রিদির বিরুদ্ধে সর্বদা বেশ চাপে থাকেন রোহিত।

টিম ইন্ডিয়ার এই অপেনারকে এখনও পর্যন্ত পাঁচবার আউট করেছেন শাহিন আফ্রিদি। পাকিস্তানের বাঁ হাতি পেসারের বিরুদ্ধে পাঁচ ম্যাচে রোহিত করেছেন ১১০ রান।

শুধু রোহিত শর্মা নয়, শাহিন আফ্রিদির বিরুদ্ধে বিরাট কোহলির লড়াও দেখার হবে। আসলে বাঁ হাতি পেসারের বল খেলতে বেশ অসুবিধা হয়।

সেই কারণেই শাহিন আফ্রিদির বলে মোট চারবার সাজঘরে ফিরে ছিলেন বিরাট। আফ্রিদির বিরুদ্ধে ১২৮.১ স্ট্রাইক রেটে ২৮.৫ গড়ে রান করেছেন কোহলি। এখন দেখার রবিবারের লড়াইয়ে ফল কী হয়।

বিরাট কোহলি ও সূর্যকুমার যাদবের সঙ্গে মহম্মদ নাওয়াজের লড়াইটাও বেশ কঠিন হতে পারে। নাওয়াজের ওভারে কী ভাবে রানের গতিকে ভারত এগিয়ে নিয়ে যায় সেটাই হবে দেখার।

কারণ পাকিস্তান বোলার দারুণ বাবে রানের গতিকে ধরে রাখতে পারেন, কিন্তু ব্যাটহাতেও ছেড়ে কথা বলবেন না কোহলি, সূর্যকুমার।

দেখার লড়াই হবে যখন বাবর আজমের বিরুদ্ধে বল করবেন জসপ্রীত বুমরাহ। বিশ্বের অন্যতম সেরা ব্যাটরকে বল করবেন বিশ্বের অন্যতম সেরা বোলার।

যদিও এই দুজনে একে অপরের বিরুদ্ধে একদিনের ম্যাচেই নেমেছিল, তবু সেখানেও বাবরকে আউট করতে পারেননি বুমরাহ। এখন দেখার লড়াইটা কোন পথে যায়।

তবে ভারতের স্পিনের বিরুদ্ধে পাকিস্তানের মিডিল ওর্ডারের লড়াইটা বেশ উপভোগ করবে বাইশ গজ। রবীন্দ্র জাদেজা ও বরুণ চক্রবর্তীকে কী ভাবে হায়দার আলি ও শোয়েব মালিকরা খেলেন সেটা হবে দেখার।

অপেক্ষা আর কিছুক্ষণের তারপেরই সব প্রশ্ন ও সব জল্পনা থেকে উঠতে চলেছে পর্দা। দেখা যাবে ভারত বনাম পাকিস্তানের হাইভোল্টেজ ম্যাচে কোন লড়াইটা সব থেকে বেশি জমে ওঠে।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *