অর্জুনের লাইফস্টাইল দেখে হিংসা করতেন সরফরাজ, হৃদয়স্পর্শী গল্প বললেন বাবা

অনেক তরুণ খেলোয়াড়ের স্বপ্ন টিম ইন্ডিয়াতে খেলার। মুম্বাইয়ের হয়ে রঞ্জি ট্রফি খেলা সরফরাজ খানও টিম ইন্ডিয়ার হয়ে খেলার স্বপ্ন দেখেন।

সম্প্রতি অরুণ জেটলি স্টেডিয়ামে দিল্লির বিরুদ্ধে রঞ্জি ট্রফি মরসুমের তৃতীয় সেঞ্চুরি করেছেন। ১৬টি চার ও চারটি ছক্কার সাহায্যে ১৫৫ বলে ১২৫ রান করেন তিনি। একই সময়ে সরফরাজ খান এবং তার বাবার একটি হৃদয় ছোঁয়া গল্প সোশ্যাল মিডিয়ায় ক্রমশ ভাইরাল হচ্ছে।

আসলে, ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস পত্রিকার সাথে কথোপকথনের সময়, সরফরাজ খানের বাবা তার ছেলের সাথে সম্পর্কিত একটি হৃদয়স্পর্শী আবেগঘন ঘটনা উল্লেখ করেছিলেন।

ঘটনাটি এতটাই আবেগপ্রবণ ছিল যে শ্রোতার চোখে জল এসে যায়। আসুন আপনাকে সেই ঘটনা/গল্পের সাথে পরিচয় করিয়ে দেই।

গল্পটি শুরু হয় সরফরাজ খানের শৈশব থেকে, যখন সরফরাজ প্রাক্তন ভারতীয় কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকারের ছেলে অর্জুনের সাথে এবং বিপক্ষে ক্রিকেট খেলতেন। একদিন ছোট সরফরাজ তার বাবাকে বলল,

‘আব্বু অর্জুন খুব ভাগ্যবান, তাই না? তিনি শচীন স্যারের ছেলে। তার একটি গাড়ি, একটি আইপ্যাড, সবকিছু আছে। সরফরাজের কথা শুনে কিছুটা আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েন বাবা নওসাদ।

তিনি নিজেকে অভিশাপ দিয়ে বলেছিলেন যে তিনি তার ছেলের জন্য কিছুই করতে পারবেন না। কিন্তু কিছুদিন পর তার ছেলে সরফরাজ তার কাছে এসে তাকে জড়িয়ে ধরে।

এরপর সরফরাজ বলেন, ‘আমি তার (অর্জুন) চেয়ে বেশি ভাগ্যবান। আপনি আমাকে সারা দিন দিতে পারেন। কিন্তু তার বাবা (শচীন টেন্ডুলকার) তাকে একটু সময় দেওয়ার মতো সক্ষম নন।

আমরা আপনাকে বলি যে ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ড সম্প্রতি অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে চার ম্যাচের হোম টেস্ট সিরিজের জন্য 17 সদস্যের ভারতীয় দল ঘোষণা করেছে।

দলে নাম না দেখে খুবই দুঃখ পেয়েছিলেন সরফরাজ খান। এর পরে, তিনি তার সোশ্যাল মিডিয়া পোস্টের মাধ্যমে নির্বাচকদের আয়না দেখালেন। একই সময়ে, সরফরাজ খান প্রকাশ করেছেন যে তিনি কেবল ব্যাট নয়, উইকেটরক্ষক হিসাবেও দলে অবদান রাখতে পারেন।

Related Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *